আইসিইউতে ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী


বরিস জনসন

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) আক্রান্ত হয়ে আইসিইউতে অক্সিজেন সাপোর্টে রয়েছেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন।

এর আগে গত শুক্রবার আইসোলেশনে থাকা অবস্থায় টুইটারে এক ভিডিও বার্তায় বরিস জনসন জানিয়েছিলেন, তার শরীরের তাপমাত্রা অনেক বেশি।

অন্যদিকে আইসোলেশনে থাকার ১০ দিন পরেও তার শরীরে করোনার লক্ষণ বেড়ে যাওয়ায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন বিশেষজ্ঞরা। তারা বলছেন, এক সপ্তাহের বেশি কারও শরীরের তাপমাত্রা বেশি থাকলে তা থেকে নিউমোনিয়া হওয়ার আশঙ্কা থাকে।

ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় তার হাসপাতালে ভর্তির বিষয়টিকে ‘পূর্ব সতর্কতামূলক’ ব্যবস্থা হিসেবে উল্লেখ করেছে। ডাউনিং স্ট্রিট এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, চিকিৎসকের পরামর্শে প্রধানমন্ত্রী রোববার রাতে হাসপাতালে পরীক্ষার জন্য ভর্তি হয়েছেন।

এতে বলা হয়েছে, প্রধানমন্ত্রীর করোনা ধরা পড়ার ১০ দিন পর করোনার প্রথাগত উপসর্গ থাকায় পূর্ব সতর্কতামূলক এ পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে।

গত ২৭ মার্চ বিশ্বের শক্তিশালী রাষ্ট্রনেতাদের মধ্যে প্রথম ব্যক্তি হিসেবে করোনা ধরা পড়ে ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনের। এরপর ডাউনিং স্ট্রিটের একটি ফ্লাটে তিনি সেল্ফ আইসোলেশনে চলে যান।

গত শুক্রবার বরিস জানান, তিনি ভালো অনুভব করছেন তবে শরীরে জ্বর আছে।

এদিকে যুক্তরাজ্যে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৪৭ হাজার ৮০৬ জন। মারা গেছেন ৪ হাজার ৯৩৪ জন।

এসএম/আওয়াজবিডি

ads